আজ ৬ই এপ্রিল, ২০২০ ইং || ২৩শে চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
  সিলেটে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত       চন্দনাইশে বঙ্গবন্ধু সমাজ কল্যাণ পরিষদের উদ্যোগে ২০০ অসহায় পরিবারের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ       কর্মহীন ঘরবন্দী মানুষ গুলোর পাশে দাঁড়ানো সমাজের বিত্তবানদের প্রতি আহবান       বাঁশখালীতে গৃহবন্দী ৬ শত বাস শ্রমিকদের মাঝে ত্রাণ পৌছিয়ে দিয়েছে এমপি মোস্তাফিজ       চন্দনাইশে উত্তর হাশিমপুর গ্রামে গীতাসংঘের উদ্যোগে গরীব অসহায় পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ       হাটহাজারীর গুমান মর্দ্দনে নুরুল আলম চৌধুরী ১৫০ অসহায় পরিবারের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ       আলোড়ন সমবায় সমিতির পক্ষ থেকে ২৫০ অসহায় পরিবারকে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ       চন্দনাইশ পৌরসভায় ভাইরাস বিস্তার প্রতিরোধে জীবাণুনাশক ছিটানোর কার্যক্রম       ছদাহা আশ্রয়কেন্দ্রের সাধারণ মানুষের মাঝে খানে আলম মিন্টুর মাস্ক বিতরণ       বাঁশখালীতে ল্যাংটা ফকির মোস্তাফাকে এসিড মিশ্রিত পানি পান করিয়েছে দুর্বৃত্তরা    


চট্টগ্রাম-৮ (বোয়ালখালী-চান্দগাঁও) আসনের উপ নির্বাচনের আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোসলেম উদ্দিন আহমদের ছোট্ট পরিসরে জীবনী।

নিজস্ব প্রতিবেদক:  

মোছলেম উদ্দিন আহমদ চট্টগ্রাম জেলার বোয়ালখালী উপজেলার অন্তর্গত বোয়ালখালী পৌরসভার পশ্চিম কদুরখীল গ্রামের কাজী মোহাম্মদ নকী বাড়ীতে ১৯৪৯ ইংরেজি ২ নভেম্বর তারিখে এক সম্ভ্রান্ত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম মরহুম মোশাররফ উদ্দিন আহমদ ও মাতার নাম মরহুমা রওশন আরা বেগম। ১৯৬৭ সালে চট্টগ্রাম সরকারি মুসলিম হাইস্কুল থেকে এস,এস,সি পরীক্ষায় হয়ে চট্টগ্রাম সরকারি কর্মাস কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক শ্রেনীতে ভর্তি হন। উক্ত কলেজে থেকে ১৯৬৮ সালে এইচ,এস,সি এবং সালে স্নাতক ডিগ্রী লাভ করেন। স্নাতকোত্তর শ্রেনীতে পড়াশুনার জন্য চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি হন ১৯৭৬ সালে কৃতিত্বের সাথে স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করেন। চট্টগ্রাম সরকারি মুসলিম হাইস্কুলে পড়াশুনা করার সময় বাঙালি জাতীয়তাবাদী আদর্শে উদ্ধুদ্ব হয়ে ১৯৬৬ সালে তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তান ছাত্রলীগে যোগদান করেন। ছাত্রলীগে যোগদান করেই তিনি সংগঠনের সকল কর্মকান্ডে অংশগ্রহণ করতে থাকেন। ফলশ্রুতিতে তিনি অল্পসময়ের মধ্যেই ছাত্রলীগের একজন একনিষ্ঠ ও নিবেদিতপ্রান সার্বক্ষণিক কর্মী হিসেবে নিজেকে গড়ে তোলেন। প্রর্যায়ক্রমে তিনি ছাত্রলীগের কাতারের নেতা হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেন। তিনি ১৯৬৯ সালে চট্টগ্রাম কমার্স কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি ও চট্টগ্রাম শহর ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত হন। ১৯৭০ সালে চট্টগ্রাম শহর ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। পরবর্তীতে ১৯৭২ সালে চট্টগ্রাম শহর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। সভাপতি ছিলেন জসিম উদ্দিন আহমদ খান(অ্যাডভোকেট)। মোছলেম উদ্দিন আহমদ ১৯৬৬ সালের ৬ দফা আন্দোলন, ১৯৬৮ এর গনজাগরণ, ১৯৬৯ সালের গণঅভ্যুত্থান, ১৯৭০ সালের ঐতিহাসিক সাধারন নির্বাচন, ১৯৭১ সালে মহান নেতা বঙ্গবন্ধু ঘোষিত পাকিস্তানি ঔঔপনিবেশিক শাসনের বিরুদ্ধে সর্বাত্নক অসহযোগ আন্দোলন ও ১৯৭১ সালে বঙ্গবন্ধুর আহবানে সাড়া দিয়ে মহান মুক্তিযুদ্ধে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন। মুক্তিযুদ্ধের সূচনালগ্নে ছাত্রনেতা হিসেবে মুক্তিযুদ্ধেকে সংগঠিত করতে ব্যাপক ভূমিকা পালন করেন। চট্টগ্রাম স্টেশন রোডস্থ রেস্ট হাউজে ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চের পর বাঙালি ইপি আর, বাঙালি আনসার, বাঙালি পুলিশ, বাঙালি সেনাবাহিনীর সদস্যরা যারা মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছিল সে সমস্ত মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য তিনি ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে অস্ত্র, কাপড় চোপড় ও খাদ্য সংগ্রহের কাজে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করে। সমগ্র চট্টগ্রাম শহরের অধিকাংশ এলাকা তখন মুক্তিযোদ্ধাদের দখলে। বাঙালিরা দেশীয় অস্ত্র শস্ত্র, লাঠি, বল্লম, তীর ধনুক নিয়ে, এমন কি মরিচের গুড়া নিয়ে বাঙালি মহিলারা নিজ এলাকার রাস্তায়, বাসার ছাদে দালানের কোণায়, অবস্থান গ্রহণ করে হানাদার পাকিস্তানি বাহিনীর মোকাবেলা করার জন্য অসীম মনোবল ও সাহস নিয়ে প্রতিরোধ যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়ে। পাকিস্তানি কমান্ডোদের অতর্কিত আক্রমণে জামালখান এলাকার চেরাগী পাহার মোড়ে শহীদ হন দীপক,জাফর ও বদরুজ্জামানের মত বীর মুক্তিযোদ্ধারা, আর এমনি এক কমান্ডো বাহিনীর হাতে মুক্তিযুদ্ধের প্রথম দিকে গ্রেপ্তার হন ছাত্রলীগ নেতা, মহিউদ্দিন চৌধুরী, মোসলেম উদ্দিন আহমদ ও মোঃ ইউনুস। দীর্ঘ আড়াইমাস তারা চট্টগ্রাম কারাগারে বন্দী ছিলেন। কারাগারে বন্দী থাকাকালীন তাদের মাথায় এল এক দুঃসাহসিক চিন্তা। কিভাবে কারাগার থেকে পালানো যায়। তারা পাগল সেজে কারাগার থেকে বের হয়ে গেলেন। কারাগার থেকে পালানোর পর আবারো দেশকে শত্রু মুক্ত করার জন্য যুদ্ধ করেন,,,যাদের মধ্যে মোসলেম উদ্দিন ছিল অন্যতম। মোসলেন উদ্দিন শুধু একজন রাজনীতিবিদ নন। তিনি একজন সৃজনশীল প্রতিভার অধীকারী ব্যক্তি। ছাত্রজীবন থেক তিনি সাহিত্য চর্চার সাথে যুক্ত ছিলেন। ১৯৭০ সালে জয় বাংলা নামে একটি সাময়িকী তার সম্পাদনা প্রাকাশিত হয়। এছাড়াও চট্টগ্রাম থেকে প্রকাশিত সাপ্তাহিক সাহসী ঠিকানার তিনি সম্পাদক। তিনি একজন সার্বক্ষনিক রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব। চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা যুবলীগের সভাপতির দায়িত্বও তিনি পালন করেন। পরবর্তীতে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামীলীগের রাজনীতিতে তিনি সম্পৃক্ত হন। ১৯৮৬ সাল হইতে ২০১২ সাল পর্যন্ত দীর্ঘদিন তিনি চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হিসিবে দায়িত্ব পালন করেছেন। বর্তমানে তিনি চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। ২০২০ সালের ১৩ জানুয়ারীতে চট্টগ্রাম ৮ আসনের উপ- নির্বাচনে আওয়ামীলীগের দলীয় মনোনয়ন দিয়েছেন। স্ত্রী শিরিন আহমদ ও চার মেয়ে নিয়ে তার পরিবার। তিনি বর্তমানে খুলশী থানার অধীনে লালখান বাজারস্থ হিলসাইড আবাসিক এলাকায় রওশন ইমন টাওয়ারে স্থায়ীভাবে বসবাস করেন।

মঙ্গলবার(১০ডিসেম্বর) বিকাল সাড়ে ৫টায় বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটে চট্টগ্রাম শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে নামেন মোছলেম উদ্দিন। আগে থেকে দক্ষিণ জেলা আওয়ামীলীগ, ছাত্রলীগ, বোয়ালখালী উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দ তাকে স্বাগত জানানোর জন্য বিমান বন্দরে অপেক্ষা করতে থাকেন।

বিপুল সংখ্যাক নেতাকর্মীর উপস্থিতিতে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও চট্টগ্রাম-৮ (বোয়ালখালী-চান্দগাঁও) আসনের উপ নির্বাচনের আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী মোছলেম উদ্দিন আহমদ বলেন, জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বোয়ালখালী-চান্দগাঁওবাসীর সেবা করার জন্য আমাকে যোগ্য মনে করে মনোনয়ন দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী আমাকে মনোনয়ন দিয়ে যে আস্থা রেখেছেন সেই আস্থার মর্যাদা রাখার জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করে আগামী ১৩ জানুয়ারি নৌকাকে জয়ী করতে হবে। নৌকা জয়ী হলে বোয়ালখালী-চান্দগাঁওবাসীর উন্নয়ন হবে এবং ভাগ্যের পরিবর্তন হবে। আপনারা ঐক্যবদ্ধ থাকলে আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে এই আসনটি উপহার দিতে পারবো ইনশাআল্লাহ।

বিমান বন্দরে মোছলেম উদ্দিন আহমদকে স্বাগত জানাতে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, সহ-সভাপতি এডভোকট আ খ ম সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট জহির উদ্দিন, সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য খোরশেদ আলম, এড. মুজিবুর রহমান, বোরহান উদ্দিন এমরান, শাহনেওয়াজ হায়দার চৌধুরী শাহিন, বিজয় কুমার বড়ুয়া, সদস্য মোস্তাক আহমেদ আঙ্গুর, সিবলী, দক্ষিণ জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক শামীমা হারুন লুবনা, বোয়ালখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নুরুল আমিন চৌধুরী, সহ সভাপতি শফিকুল আলম, শাহাদাত হোসেন, আবুল কাশেম, পৌরসভার প্যানেল মেয়র শাহজাদা এসএম মিজানুর রহমান, সাতকানিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কুতুব উদ্দিন চৌধুরী, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এস.এম. বোরহান উদ্দিনসহ উপজেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ।



সিলেটে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত

চন্দনাইশে বঙ্গবন্ধু সমাজ কল্যাণ পরিষদের উদ্যোগে ২০০ অসহায় পরিবারের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ

কর্মহীন ঘরবন্দী মানুষ গুলোর পাশে দাঁড়ানো সমাজের বিত্তবানদের প্রতি আহবান

বাঁশখালীতে গৃহবন্দী ৬ শত বাস শ্রমিকদের মাঝে ত্রাণ পৌছিয়ে দিয়েছে এমপি মোস্তাফিজ

চন্দনাইশে উত্তর হাশিমপুর গ্রামে গীতাসংঘের উদ্যোগে গরীব অসহায় পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ

হাটহাজারীর গুমান মর্দ্দনে নুরুল আলম চৌধুরী ১৫০ অসহায় পরিবারের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ

আলোড়ন সমবায় সমিতির পক্ষ থেকে ২৫০ অসহায় পরিবারকে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ

চন্দনাইশ পৌরসভায় ভাইরাস বিস্তার প্রতিরোধে জীবাণুনাশক ছিটানোর কার্যক্রম

ছদাহা আশ্রয়কেন্দ্রের সাধারণ মানুষের মাঝে খানে আলম মিন্টুর মাস্ক বিতরণ

বাঁশখালীতে ল্যাংটা ফকির মোস্তাফাকে এসিড মিশ্রিত পানি পান করিয়েছে দুর্বৃত্তরা

চট্টগ্রাম রাঙ্গুনিয়ার অধিবাসী মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির ইবনে মোহাম্মদ

সাতকানিয়ার এসএসসি পরীক্ষার্থী জান্নাতুল ফেরদৌসকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

বাশঁখালীতে এস.এস.সি পরীক্ষা কেন্দ্র থেকে ভুয়া শিক্ষক গ্রেপ্তার

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট সদস্য মনোনীত হলেন সাংসদ নজরুল ইসলাম চৌধুরী

লবণের দাম বৃদ্ধির ‘গুজব’, বেশি দামে লবণ বিক্রি করায় চন্দনাইশে ৪ প্রতিষ্ঠানকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা

আগামী ৩ মাসের বিদ্যুৎ, পানি ও গ্যাস বিল মওকুফের দাবী বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের

রাঙ্গুনীয়ার ডা: মুহাম্মদ শাহেদ হোসেন ৩৯তম বিসিএস (স্বাস্থ্য) ক্যাডারে সুপারিশকৃত

ব্যবসায়ী স্বপন নাথের দাহ সম্পন্ন, খুনিদের শাস্তি দাবী করে হিন্দু বৌদ্ধ খৃষ্টান পরিষদের কর্মসূচি ঘোষনা

পারভেজ ও সেলিমের নেতৃত্বে দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল ও মটর শোভাযাত্রা

অত্যাচারের মধ্যে দিন যাপন করতে হয় করাইয়ানগর হিন্দু পাড়ায়